কৃষি তথ্য সার্ভিস (এআইএস) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ৭ ডিসেম্বর ২০১৬

বাগেরহাট রামপালের কালেখারবেড় আইএফএমসি’র কৃষক মাঠ স্কুলের মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত


প্রকাশন তারিখ : 2016-11-22

রামপাল উপজেলার কালেখারবেড় আইএফএমসি কৃষক মাঠ স্কুলের মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়। স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আঃ হান্নান ডব্লিুউ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মাঠ দিবসে প্রধান অতিথি ছিলেন,আঞ্চলিক আইএফএমসি প্রকল্পের কো অর্ডিনেটর মোঃ সোহরাব হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন,উপ পরিচালক কৃষি সম্প্রসারন বাগেরহাট মোঃ আফতাব উদ্দিন,উপজেলা কৃষি অফিসার,রামপাল,বাগেরহাট শংকর কুমার মজুমদার,আঞ্চলিক বেতার কৃষি অফিসার,কৃষি তথ্য সার্ভিস,খুলনা এম এম আব্দুর রাজ্জাক ও মোঃ আকরাম হোসেন। মাঠ স্কুলের কৃষি কারিগরী দিক তুলে ধরেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা। ভ’মিহীন গ্রুপের সব্জি,ফল,হাঁস মুরগী,গরু,মাছ চাষ নিয়ে বক্তব্য রাখেন দেবব্রত চক্রবর্তী,কল্পনা মন্ডল প্রমুখ।
বিশেষ অতিথি উপ পরিচালক বাগেরহাট বলেন, বাংলাদেশের কৃষকদের উৎপাদিত ফসলের বাজার এখন বিশ্ব বাজর। আমাদের দেশের বিষমুক্ত আম বিশ্বের মানুষের কাছে সমাদৃত।মধু উৎপাদনে বিশ্বে প্রথম স্থান দখল করেছে বাংলাদেশ। বর্তমান কৃষি বান্ধব সরকারের আমলে কৃষির স্বর্ণালী যুগ চলছে। তিনি উপস্থিত চাষিদের উদ্দেশ্যে আরো বলেন, জনপ্রতিনিধি ও সরকারী কর্মকর্তাদের সাথে যতবেশী যোগাযোগ রাখা হবে ততবেশী ভাল হবে। বিশেষ অতিথি আঞ্চলিক বেতার কৃষি অফিসার এম এম আব্দুর রাজ্জাক বলেন, কৃষি প্রযুক্তি বিস্তারে কৃষি তথ্য সার্ভিস কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের পাশে থেকে প্রচার প্রচারনার কাজ চালিয়ে যাচ্ছে। বেতার,টেলিভিশন,পত্র- পত্রিকা বিশেষ করে বুকলেট লিফলেট,কৃষি কথার মাধ্যমে চাষি সাধারণের কাছে কৃষি প্রযুক্তি ছড়িয়ে দেয়া হচ্ছে।
প্রধান অতিথি আইএফএমসি প্রকল্পের কো অর্ডিনেটর মোঃ সোহরাব হোসেন বলেন, প্রকল্পের মাধ্যমে ভ’মিহীন গ্রুপের চাষিদেরকে বীজ ,সার সহ অন্যান্য সার্পোট দিয়ে কৃষি উন্নয়নে ব্যাপক ভ’মিকা রাখতে পেরেছে। বসত বাড়িতে স্থাপিত বিভিন্ন ফসলের চাষ করে ট্রায়েলের মাধ্যমে কৃষি প্রযুক্তি হাতে কলমে প্রশিক্ষণ দেয়া যাচ্ছে। চাষাবাদ সম্পর্কে নতুন নতুন তথ্য সববরাহ ও যথাযথ ব্যবহার করা সম্ভব হচ্ছে। এতে করে চাষিরা পুষ্টি শিক্ষায় শিক্ষিত হচ্ছে।সভাপতি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আঃ হান্নান পরিবেশ বান্ধব কৃষি উৎপাদনের প্রতি গুরুত্বারোপ করেন। মাঠ দিবসে প্রায় দুই শতাধিক চাষি উপস্থিত  ছিলেন।

 

 


Share with :
Facebook Facebook