কৃষি তথ্য সার্ভিস (এআইএস) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২২nd ডিসেম্বর ২০১৬

কৃষিসংক্রান্ত তথ্যে ভিন্নতা থাকলে কৃষি মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী সমন্বয় করা দরকার- কৃষিমন্ত্রী


প্রকাশন তারিখ : 2016-12-20

বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের কৃষিসংক্রান্ত তথ্যে ভিন্নতা থাকলে তা কৃষি মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী সমন্বয় করা দরকার বলে মন্তব্য করেন কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী এমপি। তিনি বলেন ‘সব অ্যানালাইসিসের সঙ্গে আমরা একমত হব না, আবার সব অ্যানালাইসিস বাদ দিয়ে দেব তাও না। কিছু দ্বিমত থাকবে। যদি দুই ধরনের তথ্য আসে, বিবিএস একটা বলল আবার মাঠের রিয়েলিটি এক ধরনের, সেখানে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে অন্তত সমন্বয় বিধান করা দরকার। কৃষি মন্ত্রণালয়েরও একটা স্টাডি আছে, সেটা কৃষি মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে নেয়া উচিত। ১৯ ডিসেম্বর ২০১৬ বাংলাদেশ সচিবালয়ে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত চেঞ্জিং সিনারিও অব বাংলাদেশ এগ্রিকালচার শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

 

মাননীয় মন্ত্রী আরও বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের সঙ্গে তাল মিলিয়ে সরকার কৃষি খাতের উন্নয়ন ও উৎপাদন বাড়ানোর বিষয়ে পদক্ষেপ নেয়া হবে। সেই সাথে শুধু এক বা দুই ধরনের খাদ্যশস্য উৎপাদনের মধ্যে সীমাবদ্ধ না থেকে উৎপাদনে বহুমুখিতা আনার পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। কৃষিতে যদি আমরা না এগোতে পারতাম তাহলে বাংলাদেশে উন্নতি করা সম্ভব হতো না। বাংলাদেশ সার্বিকভাবে এগোচ্ছে। কৃষি খাতও এগোচ্ছে। তিনি আরও বলেন, আমরা কৃষি ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় সব তথ্য সংগ্রহ করে প্রয়োগে করি। প্রয়োগে সফল হয়েছি বিধায় দেশের মানুষ আজ দেশের মানুষ খেয়ে পড়ে ভালো আজে। দেশে ১৬ কোটি মানুষ তিন বেলা ভালোভাবে খেতে পাচ্ছে। আমরা জলবায়ু পরিবর্তনের দিকে লক্ষ্য রেখে কৃষি উৎপাদনে ও কৃষিখাতের উন্নয়নে পদক্ষেপ নিচ্ছি। পানি যেমন স্বল্পতা থাকবে, তেমনি আবার বন্যা হবে সেটাও মাথায় রেখেই এগিয়ে যাচ্ছি। তিনি উল্লেখ করেন, এ ব্যাপারে কৃষককে উৎসাহিত করা হচ্ছে। এক্ষেত্রে সরকার কোনো কিছু চাপিয়ে দেয় না। আমরা দিকনির্দেশনা দিয়ে কৃষকদের নানা ধরনের খাদ্যশস্য উৎপাদনে বাধ্য করছি। এ সময় তিনি আলু উৎপাদনের প্রসঙ্গ তুলে ধরে বলেন, এখন আমরা প্রচুর আলু উৎপাদন করছি। বিশ্বে আলু উৎপাদনে বাংলাদেশ সপ্তম স্থানে রয়েছে। আলু রফতানি হচ্ছে। আলু উৎপাদন ও রফতানি বাড়ানোর জন্য আমরা রফতানিতে প্রণোদনা দিচ্ছি।

 


অনুষ্ঠানে চেঞ্জিং সিনারিও অব বাংলাদেশ এগ্রিকালচারের ওপর উপস্থাপন করেন ইফপ্রি বাংলাদেশের কান্ট্রি রিপ্রেজেন্টেটিভ আখতার আহমেদ। বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) তথ্য ব্যবহার করে উপস্থাপনাটি দেয়া হয়। কৃষি সচিব মোহাম্মদ মঈনউদ্দীন আবদুল্লাহ্ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক খাদ্য ও স্বাস্থ্য উপদেষ্টা এএমএম শওকত আলী। সেমিনারে কৃষি মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ দপ্তর প্রধানগণ অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠানটি আয়োজন করে ইন্টারন্যাশনাল ফুড পলিসি রিসার্স ইনস্টিটিউট (ইপ্রি)।

 


Share with :
Facebook Facebook