কৃষি তথ্য সার্ভিস (এআইএস) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১০ জুলাই ২০১৭

রাজশাহীর পবায় সেক্স ফেরোমন প্রদর্শণীর মাঠ দিবস


প্রকাশন তারিখ : 2017-06-25

অদ্য ২২ জুন/২০১৭ খ্রিঃ তারিখ সকাল ১০টায়  রাজশাহী জেলার পবা  উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর এর সার্বিক সহযোগিতায় খরিপ-১/২০১৭-২০১৮ মৌসুমে প্রণোদনা কর্মসূচীর আওতায় কুমড়া জাতীয় ফসলের মাছি পোকা দমণে সেক্স ফেরোমন ফাঁদ ব্যবহার প্রদর্শণীর মাঠ দিবস ঘিপাড়া গ্রামে অনুষ্ঠিত হয়। পবা উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ এ কে এম মঞ্জুরে মাওল-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, রাজশাহীর উপ-পরিচালক কৃষিবিদ দেব দুলাল ঢালী ।  বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পবা উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি মোঃ মাহফুজুর রহমান। মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে প্রদর্শণীর লক্ষ্য, উদ্দেশ্য, গুরুত্ব ও তাৎপর্য তুলে ধরে স্বাগত বক্তব্য রাখেন  পবা উপজেলার অতিরিক্ত কৃষি অফিসার কৃষিবিদ শারমিন সুলতানা  ।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন,আমাদের কৃষকেরা নিয়ম না মেনে কুমড়া জাতীয় ফসলে যথেচ্ছা কীটনাশক ব্যবহার করে থাকেন ।  কিটনাশক ব্যবহারের পরেই ফসল সংগ্রহ করে  বাজারজাত করেন এবং নিজেরাও খেয়ে থাকেন । এতে করে কৃষকদের আর্থিক ক্ষতি হয়,পরিেেবশ বিষাক্ত হয় এবং আমরা পেটের পীড়াসহ নানাবিধ জটিল রোগে আক্রান্ত হয়ে থাকি । অপরদিকে জৈব কীটনাশক ব্যবহারের ফলে পরিবেশের কোন ক্ষতি হয় না । আর্থিক খরচ কম হয় । আর কুমড়া জাতীয় ফসলে সেক্স ফেরোমন ফাঁদ ব্যবহারের ফলে পুরুষ পোকা ফাঁদে পড়ে মারা যায় । ফলে স্ত্রী পোকা ডিম দিতে পারে না এবং পোকার বংশ বিস্তার হয়না ।ফলে ফসলের কোন ক্ষতি হয় না এবং বিষ মুক্ত ফসল উৎপাদন সম্ভব হয় । ফসলের বাজার মূল্য ভাল পাওয়ায় কৃষকেরা আর্থিকভাবে লাভবান হয় । আমের মাছি পোকা এবং বেগুনের ডগা ও ফল ছিদ্রকারী পোকা দমণের জন্য আলাদা আলাদা সেক্স ফেরোমন ফাঁদের লিউর বের হয়েছে । এটি ব্যবহার করলে আম ও বেগুন ফসলের ক্ষতিকারক পোকা দমণ করে আর্থিকভাবে লাভবান হবেন । তিনি সকলকে যথেচ্ছা কীটনাশক ব্যবহার না করে জৈব কীটনাশক ও সেক্স ফেরোমন ফাঁদ ব্যবহার করে বিষমুক্ত ফল ও ফসল উৎপাদনে এগিয়ে আসার জন্য সকলের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানান ।

সভাপতি মহোদয় বলেন, কুমড়া জাতীয় ফসলে বিঘা প্রতি ৮-১০টি সেক্স ফেরোমন ফাঁদ  ব্যবহার করতে হয় । তিনি জানান একটি লিউর আবিষ্কৃত হয়েছে যা সেক্স ফেরোমন ফাঁদে ব্যবহার করলে  পুরুষ ও স্ত্রী উভয় পোকা মারা যাবে । তিনি বিষমুক্ত সবজি ও ফল উৎপাদনে  এগিয়ে আসার জন্য সকলের প্রতি অনুরোধ  জানান ।  পরিশেষে তিনি উপস্থিত সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ দিয়ে কার্যক্রমের সমাপ্তি ঘোষনা করেন।

মাঠ দিবস উপস্থিত ছিলেন পবা উপজেলা কৃষি অফিসের সহকারী কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার মোঃ শরাফত হোসেন,উপ-সহকারী উদ্ভিদ সংরক্ষণ অফিসার মোঃ আব্দৃুর রহমান, উপ-সহকারী কৃষি অফিসার মোঃ নূরুল ইসলাম, মোঃ রবিউল ইসলাম, মোঃ মোশাররফ হোসেন,মোঃ শরিফুল ইসলাম,মোঃ তৈয়ব আলী, কৃষি তথ্য সার্ভিস, রাজশাহীর এ আই সি ও  মোঃ শফিকুল ইসলাম, সাংবাদিক ও  এলাকার কৃষক-কৃষানী এবং গ্রামের গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ মিলে প্রায় ২৫০ জন উপস্থিত ছিলেন ।

 


Share with :
Facebook Facebook